April 16, 2024

বাড়িতে শিব লিঙ্গ থাকলে অবশ্যই পড়ুন

How to Keep Shiva Linga at Home / Rules of Keeping Shiva Lingam at Home


আপনার বাড়িতে কি শিব লিঙ্গ রয়েছে? আপনি কি প্রতিদিন মহাদেব শিবের পুজো করেন? হয়ত শিব রাত্রির দিন আপনিও শিব লিঙ্গে জল ঢালবেন। কিন্তু আপনি জানেন কি?

How to keep shiva linga at home


১. বাড়িতে কোন ধরনের শিব লিঙ্গ রাখা উচিৎ?
২. বাড়ির কোথায় শিব লিঙ্গ রাখা উচিৎ?
৩. বাড়িতে শিব লিঙ্গ থাকলে কি কি বিধি নিষেধ পালন করতে হয়?

উপরের বিষয় গুলি যদি আপনার না জানা থাকে তাহলে এই লেখাটি খুব ভালভাবে প্রথম থেকে শেষ পর্যন্ত পড়লে অনেক অজানা বিষয় জানতে পারবেন যা হয়ত আপনারা এর আগে কোথাও শোনেন নি।

১. বাড়িতে কোন ধরনের শিব লিঙ্গ রাখা উচিৎ?

বাড়িতে কোন ধরনের শিব লিঙ্গ রাখা উচিৎ এই প্রসঙ্গে যাবার আগে আমাদের সবার আগে এই বিষয়টি স্পষ্ট হওয়া উচিৎ যে বাড়িতে আদৌ শিব লিঙ্গ রাখা উচিৎ কিনা। 

এই প্রসঙ্গে শাস্ত্রবিদদের মধ‍্যে মতবিরোধ রয়েছে। অনেক শাস্ত্রবিদ বিশেষ করে বাস্তুশাস্ত্রবিদদের মতে বাড়িতে শিব লিঙ্গ রাখা একদমই উচিৎ নয়। আপনার বাড়িতে যদি শিব লিঙ্গ রাখতেই হয় তবে তা গৃহের ভেতরে নয়। বাড়িতে কোন মন্দির করে সেখানে শিব লিঙ্গ স্থাপন করা উচিৎ। এর পেছনে উনারা যে যুক্তি প্রদর্শন করেন তা হল বাড়িতে শিব লিঙ্গ থাকলে অনেক আচার উপাচার পালন করতে হয় যেমন নিত‍্য শিব লিঙ্গকে পঞ্চামৃত দিয়ে স্নান করান,নিত‍্য দুই বেলা জল ঢালা,শিব লিঙ্গের সামনে মিথ‍্যা কথা না বলা ইত্যাদি যা গৃহে পালন করা একটু অসুবিধার। তাই তারা বাড়িতে শিব লিঙ্গের বদলে মহাদেবের ছবি বা মূর্তি রেখে পুজো করবার পরামর্শ দেন।

তবে শাস্ত্রবিদদের আরেকটি মহল ঘরে শিব লিঙ্গ রেখে পুজো করবার মত দেন। তাদের বক্তব্য হল : মহাদেব হলেন ভোলেনাথ। তিনি সব কারনের কারন। তিনি ভক্তদের ভক্তিতেই তুষ্ট। তিনি কখনও ভক্তদের কোন কিছুইতে রুষ্ট হন না। ওনারা বলেন কেও যদি বাড়িতে ভক্তি ভরে পুজো করেন তবেই তিনি সেই ভক্তকে আশীর্বাদ করেন। আর যার কাছে স্বয়ং মহাদেবের আশীর্বাদ রয়েছে তিনি জীবনের সকল বাধা খুব সহজে দুর করে সফলতার চূড়ায় পৌছাতে সক্ষম।


তবে বাড়িতে শিব লিঙ্গ স্থাপন করলে অবশ্যই মাথায় রাখবেন :

এক : বাড়িতে অবশ‍‍্যই ছোট শিব লিঙ্গ রাখবেন। কখনও বড় শিব লিঙ্গ রাখবেন না। শিব লিঙ্গের আকার যেন আপনার আঙ্গুলের থেকে বড় না হয়।



দুই : পণ্ডিতদের একটি বড় অংশ মনে করেন বাড়িতে কখনও সাদা শিব লিঙ্গ রাখতে নেই। এর কারন হিসেবে তারা বলেন এই সাদা শিব লিঙ্গ হল বৈরাগ‍্যের প্রতীক। এই শ্বেত শিব লিঙ্গকে ভস্ম শিব লিঙ্গও বলা হয়। অর্থাৎ মহাদেব ভস্ম মেখে ধ‍্যান মগ্ন হয়ে রয়েছেন। এই সাদা শিব লিঙ্গ সন্ন‍্যাসের চিহ্ন বহন করে। মূলত সন্ন‍্যাসিরা এই সাদা শিব লিঙ্গ পুজো করেন। এই শ্বেত শিব লিঙ্গ পুজো করে সাধুরা তাদের পার্থিব সুখ ভোগ ত‍্যাগ করে আধ‍্যাত্মিক জীবনের পথে অগ্রসর হন। যেহেতু এই সকল বৈশিষ্ট্য একজন সংসারী ব‍্যক্তির ক্ষেত্রে প্রযোজ‍্য নয় তাই এই সাদা শিব লিঙ্গ বাড়িতে পুজো করতে বারন করেন পন্ডিতরা।



তবে আপনার বাড়িতে যদি ইতমধ‍্যে সাদা শিব লিঙ্গ থেকে থাকে আর আপনি সেটাকেই পুজো করে আসেন তাহলে কিন্তু এই লেখাটি পড়বার পর কিন্তু সেটিকে গাছ তলায় দিয়ে আসবেন না অথবা গঙ্গায় ফেলে আসবেন না। ওটাকে ওখানেই থাকতে দিন আর নিয়মিত পুজো করুন। মহাদেব কখনও কারও ক্ষতি করেন না। উনি সকল নিয়মের ঊর্ধ্বে। ওনার কাছে ভক্তিই মুখ‍্য আর সব গৌণ।

তিন : আপনার বাড়ির শিব লিঙ্গ যেন কোন পাথর বা তামার পাত্রে রাখা হয় এবং তার গলায় যেন ধাতুর তৈরি বাসুকি নাগ ও ত্রিশূল থাকে এবং সঙ্গে যেন পাথরের তেরি নন্দী মহারাজ অবশ‍্যই থাকে।




২. বাড়ির কোথায় শিব লিঙ্গ রাখা উচিৎ?


Direction of keeping shiva lingam at home

শিব লিঙ্গ স্থাপন করতে হয় বাড়ির সবচেয়ে পবিত্র স্থানে আর আপনার বাড়ির সবচেয়ে পবিত্র স্থান হল আপনার বাড়ির ঠাকুর ঘর। বাস্তুশাস্ত্রবিদদের মতে শিব লিঙ্গ স্থাপন করতে হয় উওর বা উওর – পূর্ব দিকে কারন হিসাবে তারা বলেন ঐ দিকেই কৈলাস ধাম অবস্থান করে যেখানে তার বাস। শিব লিঙ্গে জল অর্পন করতে হয় তাই এমন জায়গায় শিব লিঙ্গ স্থাপন করবেন যেখানে খুব সহজে যাতায়াত করা সম্ভব। মাথায় রাখবেন খালি মেঝেতে কিন্তু শিব লিঙ্গ রাখবেন না। কোন উঁচু স্থানে অথবা তাও যদি সম্ভব না হয় সেটি রাখবেন কোন সাদা কাপড় পেতে। জায়গাটি যেন পরিস্কার থাকে।

৩. বাড়িতে শিব লিঙ্গ থাকলে কি কি বিধি নিষেধ পালন করতে হয়?



আলোচনার আগেই আমরা বলেছিলাম যে পণ্ডিতদের একটি বড় অংশ মনে করেন বাড়িতে কখনও শিব লিঙ্গ রাখতে নেই। তার কারনও আমরা বিস্তারিত ভাবে আলোচনা করেছি। তবুও যাদের গৃহে শিব লিঙ্গ রয়েছে তাদের কিছু বিধি বিধান মেনে চলতে হয়। যেমন :

এক : বাড়ির শিব লিঙ্গ যেন আকারে ছোট হয়। কখনও বড় শিব লিঙ্গ গৃহে রাখবেন না।

দুই : গৃহে সাদা শিব লিঙ্গ না রাখাই ভাল বলে অনেকেই মনে করেন। এর কারনও আমরা আগেই ব‍্যাখ‍্যা করেছি।

তিন : বাড়িতে যে শিব লিঙ্গ থাকবে সেটি যেন ধাতুর পাত্রে বা পাথরের পাত্রে বসান থাকে। শিব লিঙ্গের গলায় যেন ধাতুর তৈরি বাসুকি নাগ ও ত্রিশূল এবং পাথরের তৈরি নন্দী মহারাজ অবশ্যই থাকেন।

চার : বাড়ির শিব লিঙ্গকে নিত‍্য পুজো করবেন এবং স্নান করাবেন। যদি প্রতিদিন স্নান করানো সম্ভব নাও হয় তাহলে প্রতি সোমবার বাবকে জল অর্পন করতে একদম ভুলবেন না।

পাঁচ : শিব লিঙ্গর সামনে কিন্তু মিথ্যা কথা বলা যায় না।

ছয় : শিব লিঙ্গে সিঁদুর অর্পন করবেন না।

সাত : একদম ঠান্ডা দুধ বা জল অর্পন করতে নেই। তামার পাত্র দিয়ে জল ঢালুন।

আট : শিব লিঙ্গে হলুদ অর্পন করতে নেই। হলুদ হল মহিলাদের সৌন্দর্যের প্রতীক। তাই এটি শিব লিঙ্গে দেওয়া যায় না।

নয় : যে ঘরে শিব লিঙ্গ থাকবে সেই ঘরে দেবী দূর্গা ও গণেশের ছবি অবশ্যই রাখবেন।

দশ : নিয়ম করে দুই বেলা জল অর্পন করবেন শিব লিঙ্গে। শিব লিঙ্গ কিন্তু জল ছাড়া রাখা উচিৎ না। অর্পন করা জল কখনও এখানে ওখানে ফেলবেন না।

আশা করি শিব লিঙ্গকে নিয়ে কিছু অজানা তথ‍্য আপনারা জানতে পারলেন। এই রকম হিন্দু দেব দেবীর তথ‍্য জানতে আমাদের ব্লগে নিয়মিত ভিজিট করুন। 

আমাদের Official YouTube Channel Subscribe করতে এখানে Click করুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *